লালমনিরহাটে সন্ত্রাসী হামলায় সাংবাদিক আহত-আশংকাজনক অবস্থায় রংপুর মেডিকেলে ভর্তি




লালমনিরহাটে  সাংবাদিক বদিয়ার রহমান সন্ত্রাসী হামলার শিকার  হয়েছে। সন্ত্রাসীদের হামলায় গুরুতর আহত অবস্থায় লালমনিরহাট সদর হাসপাতালে নেওয়া হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে রংপুর মেডিকেলে রেফার করেন।
বুধবার(২৯ জুলাই) সন্ধায় শহরের  তালুক খুটামারা (বানভাসা) এলাকায় তার উপর হামলা চালানো হয়। আহত সাংবাদিক বদিয়ার রহমান দৈনিক মানব বার্তার জেলা প্রতিনিধি হিসেবে দ্বায়িত্ব পালন করছেন। এ ঘটনায় লালমনিরহাট সদর থানায় অভিযোগ দায়ের করেন তার ছোটো ভাই সাইফুল ইসলাম (৩৯)।
অভিযোগ সূত্রে জানা যায়, সাইফুল ইসলাম তার ব্যাবসা প্রতিষ্ঠান বন্ধ করে বাসায় আসার সময় দেখতে পারেন তার বাসার সামনে পাকা রাস্তায় সাংবাদিক বদিয়ার রহমানের ছেলে সোহানুর রহমান শিশির(২১) কে মারধর করছেন কতিপয় সন্ত্রাসীরা। তার ভাতিজাকে রক্ষার চেষ্ঠা করলে সন্ত্রাসীরা তাকে এলোপাতারি মারধর করেন ও ধারালো ছোড়া দিয়ে আঘাত করে রক্তাক্ত যখম করে। ওই সময় সাংবাদিক বদিয়ার রহমান ছুটে এসে তাদের বাঁচানোর চেষ্ঠা করলে তার উপরও সন্ত্রাসীরা এলোপাতারি মারধর শুরু করে।  বদিয়ার রহমানের আত্নচিৎকারে তার স্ত্রী শিউলি বেগম (৪২) তাদের বাঁচানোর চেষ্ঠা করলে তাকেও মারধর করে শ্লীনতাহানী ঘটায় সন্ত্রাসীরা। এসময় সাইফুল ইসলামের পকেট থেকে ব্যাবসার ৪লক্ষ ৪৮হাজার টাকা ছিনিয়ে নেয় সন্ত্রাসীরা। এ সময় সাংবাদিকের বাড়িতে প্রবেশ করে ভাঙচুর করে প্রাণনাশের হুমকী দিয়ে ছটকে পড়ে সন্ত্রাসীরা।
এরপর এলাকাবাসী তাদের উদ্ধার করে লালমনিরহাট সদর হাসপাতালে ভর্তি করান এবং সাংবাদিক বদিয়ার রহমান গুরুতর অসুস্থ হওয়ায় কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে রংপুর মেডিকেলে রেফার করেন।
এই ঘটনায় জেলার সাংবাদিক মহল তীব্র প্রতিবাদ ও নিন্দা জানিয়েছে। তারা এই সকল সন্ত্রাসীদের দ্রুত গ্রেফতার করে সর্বোচ্চ শাস্তির দাবী জানায়।
এ বিষয়ে লালমনিরহাট সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা(ওসি) মাহফুজ আলম জানান,অভিযোগ পেয়েছি,তদন্ত করে দোষীদের বিরুদ্ধে ব্যাবস্থা গ্রহন করা হবে।

আপনার মতামত লিখুন :

প্রভাতী নিউজ সব ধরনের আলোচনা-সমালোচনা সাদরে গ্রহণ ও উৎসাহিত করে। অশালীন ও কুরুচিপূর্ণ মন্তব্য পরিহার করুন। এটা আইনত দণ্ডনীয় অপরাধ।