কেশবপুরে পুলিশের অভিযানে আইনজীবী ও মাদক ব্যবসায়ীসহ ১৩ আসামী গ্রেফতার

আজিজুর রহমান, কেশবপুর (যশোর) প্রতিনিধি:আজিজুর রহমান, কেশবপুর (যশোর) প্রতিনিধি:
  প্রকাশিত হয়েছেঃ  ০৯:৫৮ অপরাহ্ণ, ০৯ ফেব্রুয়ারি ২০২১




কেশবপুর থানা পুলিশের পৃথক অভিযানে উপজেলার বিভিন্ন এলাকা থেকে মাদকসেবী আইনজীবী, মাদক ব্যবসায়ী, বিজ্ঞ আদালতের ওয়ারেন্টভুক্ত ও নিয়মিত মারামারি মামলায় ১৩ জন আসামী গ্রেফতার। মাদক উদ্ধারের ঘটনায় তাদের বিরুদ্ধে থানায় পৃথক পৃথক মাদক দ্রব্য নিয়ন্ত্রন আইনে মামলা হয়েছে।

থানা সূত্রে জানা যায়, কেশবপুর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মোহাম্মদ জসীম উদ্দীনের সার্বিক নির্দেশনায় সোমবার রাতে উপজেলার কেসমত শানতলা বাজারের গাজীর মোড় এলাকায় অভিযান চালিয়ে উপ-পরিদর্শক পিন্টু লাল দাস, অরূপ কুমার বসু, মঈনুর রহমান, সহকারী উপ-পরিদর্শক সমরেশ দত্ত, সোহেল, মোমিন সঙ্গীয় ফোর্স নিয়ে মৃত শহর আলীর ছেলে আইনজীবী মাহবুবুর রহমান (৪৭), মাদারডাঙ্গা গ্রামের আঃ মালেক মোড়লের ছেলে মুন্না হোসেন (২০), একই গ্রামের অমল কৃষ্ণ রায়ের ছেলে প্রবীর রায় (৩২), মৃত মশির আলী সরদারের ছেলে মতিন সরদার (৩৪), মনোহরনগর গ্রামের মৃত হাজারী লালের ছেলে অনুপম রায়কে (৩০) মাদক সেবন করা অবস্থায় গ্রেফতার করে। ওই সময় তাদের কাছ থেকে ১৯ পিছ ইয়াবা, ৩ বোতল দেশী মদ, ১ বোতল ফেনসিডিল, ১০ বোতল হোমিওপ্যাথিক এ্যালকোহল ও এ্যালকোহলের ১১০ খালি বোতল উদ্ধার হয়।অপর দিকে উপ-পরিদর্শক ফজলে রাব্বি মোল্ল্যা, মাহাফুজ, তাপস কুমার রায়, সহকারী উপ-পরিদর্শক মোক্তার হোসেন সঙ্গীয় ফোর্স নিয়ে উপজেলার খোপদই গ্রামে অভিযান চালিয়ে নূর মোহাম্মদের ছেলে মোখলেছুর (২৮) মাদক সহ হাতে-নাতে গ্রেফতার করে। ওই সময় তাঁর বসত বাড়ি থেকে ৫০০ গ্রাম গাঁজা উদ্ধার করা হয়। এ ঘটনায় তার নামে থানায় মাদক দ্রব্য নিয়ন্ত্রন আইনে মামলা হয়েছে। একই রাতে উপ-পরিদর্শক আজিজুর রহমান, লিখন সরকার, মিজানুর রহমান, সহকারী উপ-পরিদর্শক নজরুল ইসলাম, কাজী রহমত, মনিরুজ্জামান সঙ্গীয় ফোর্স নিয়ে কেশবপুর পৌর শহরের মাছবাজার এলাকায় অভিযান চালিয়ে মণিরামপুর উপজেলার হাসাডাঙ্গা গ্রামের মিজানুর রহমানের ছেলে নয়ন হোসেনকে (৩২) গ্রেফতার করে। ওই সময় তার দেহ তল্লাশি করে ১০০ গ্রাম গাঁজা উদ্ধার হয়। এ ঘটনায় তার নামে থানায় পৃথক মাদক দ্রব্য নিয়ন্ত্রন আইনে মামলা হয়েছে। ওই রাতেই নিয়মিত মারামারি মামলায় তেঘরী গ্রামের মৃত তফেজ মোড়লের ৪ ছেলে ইনছার আলী (৬৫), আমজেদ আলী (৬২), আব্দুস সবুর (৬০), মশিয়ার রহমানকে (৫৫) গ্রেফতার করে থানা পুলিশ। একই অভিযানে বিজ্ঞ আদালতের ওয়ারেন্টভুক্ত বরণডালি গ্রামের আব্দুর রাজ্জাক সানার ছেলে হযরত আলী সানা (৪৫) ও মধ্যকূল গ্রামের সাত্তার মোড়লের ছেলে কবির হোসেন সুমনকে (৩৫) গ্রেফতার করা হয়।

এ ব্যাপারে কেশবপুর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মোহাম্মদ জসীম উদ্দীন বলেন, গ্রেফতারকৃতদের বিরুদ্ধে বিজ্ঞ আদালতের গ্রেফতারী পরোয়ানা, মারামারী ও মাদক মামলায় গ্রেফতার করা হয়েছে। মঙ্গলবার গ্রেফতারকৃত সকল আসামীদের যশোর আদালতে প্রেরণ করা হয়েছে। মাদক ও সন্ত্রাস নির্মূল করতে এ অভিযান অব্যাহত থাকবে।

আপনার মতামত লিখুন :

প্রভাতী নিউজ সব ধরনের আলোচনা-সমালোচনা সাদরে গ্রহণ ও উৎসাহিত করে। অশালীন ও কুরুচিপূর্ণ মন্তব্য পরিহার করুন। এটা আইনত দণ্ডনীয় অপরাধ।